কক্সবাজার, মঙ্গলবার, ২৬ অক্টোবর ২০২১

আঁরা আবারও হেলাললরে মেম্বার বানাইয়োঁম: রাজাপালং ৯নং ওয়ার্ডবাসী

নিজস্ব প্রতিবেদক::

কক্সবাজারের উখিয়ায় আগামী ১১ নভেম্বর মাসে ইউপি নির্বাচনকে সামনে রেখে চলছে প্রচার প্রচারণা। হেলাল উদ্দিন এমন একজন মেম্বার, যে কোনো অন্যায় অবিচারের সঙ্গে আপোষ করেননি। দৃঢ় অবস্থানের কারণে নিজ নির্বাচিত এলাকায় দিনের পর দিন তার জনপ্রিয়তা বেড়েই চলেছে। বর্তমানে যার বিকল্প হিসেবে অন্য কাউকে দেখছে না এলাকাবাসী। সঠিক সময়ে সঠিক সিদ্ধান্ত নেওয়া সেই মেধাবী ও পরিশ্রমি মানুষটি হলেন স্বনির্ভর উখিয়া উপজেলা রাজাপালং ইউনিয়ন পরিষদের ৯নং ওয়ার্ডের সদস্য হেলাল উদ্দিন।

পাতাবাড়ি এলাকার রাসেল বলেন, কুতুপালং যেহেতু রোহিঙ্গা অধ্যুষিত এলাকা সেই সুবাদে আঁরা হেলাললরে আবারও মেম্বার বানাইয়োঁম। এই অগ্রযাত্রার একজন অন্যতম কর্মী আমাদের ইউপি সদস্য হেলাল উদ্দিন। তিনি ইউপি সদস্য নির্বাচিত হওয়ার পর থেকে এলাকায় সন্ত্রাসী, চাঁদাবাজী ও মাদক ব্যবসা সহ সকল ধরনের অপরাধ নির্মূল করতে এলাকাবাসীকে সাথে নিয়ে নিরলস পরিশ্রম করে যাচ্ছে। তাই আমরা আগামীতে তার বিকল্প প্রার্থী হিসেবে অন্য কাউকে দেখছি না।

কুতুপালং এলাকার হাসিনা বেগম বলেন, হেলাল মেম্বার বাবা বখতিয়ার মেম্বার আমাদের এলাকায় অনেক উন্নয়ন করেছে। বর্তমানে হেলাল উদ্দিন মেম্বার করতেছে। আমরা হেলাল উদ্দিন মেম্বারকে আবারও ভোট দিয়ে জয়ের মালা দিয়ে কুতুপালংবাসীর মূখ উজ্জ্বল করব। তিনি আরও বলেন, হেলাল উদ্দিন মেম্বার ৯নং ওয়ার্ডে ১ বছরে যে পরিমাণ কাজ করেছে তা ধরে রাখার জন্য আবারও হেলাল উদ্দিন মেম্বারকে প্রয়োজন।

এ ব্যাপারে বর্তমান মেম্বার হেলাল উদ্দিনের নিকট জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমার বাবা মরহুম বখতিয়ার আহমদ কুতুপালং ৯ নং ওয়ার্ডের মেম্বার বানিয়েছিলেন কুতুপালংবাসী আবার আমাকেও এই এলাকার মানুষ আমার বাবার মতো ভালোবাসে। আমি ৯নং ওয়ার্ডকে একটি মড়েল ওয়ার্ড হিসেবে পরিণত করা আমার লক্ষ্য। আমি আশাবাদী এবং আমার এলাকার ভোটারদের প্রতি দৃঢ বিশ্বাসী যে, সকলেই আমাকে গতবারের মতো ভোট দিয়ে আবারও এলাকার উন্নয়ন মূলক কাজ করার সুযোগ দিবে। নির্বাচনে জয়যুক্ত হওয়ার জন্য আমি সবার দোয়া প্রত্যাশী।

উল্লেখ্য, উখিয়া উপজেলার হলদিয়াপালং, জালিয়াপালং, রাজাপালং, রত্নপালং এবং পালংখালী ইউনিয়ন পরিষদে আগামী ১১ নভেম্বর ইউপি নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে৷

পাঠকের মতামত: