কক্সবাজার, মঙ্গলবার, ১৩ এপ্রিল ২০২১

কয়েকদিনের মধ্যে ভাসানচরে রোহিঙ্গা স্থানান্তর শুরু

চার থেকে পাঁচ হাজার রোহিঙ্গা ভাসানচরে যেতে আগ্রহ প্রকাশ করেছে। বিষয়টি চ্যানেল 24 কে নিশ্চিত করেছেন শরণার্থী, ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার। অন্যদিকে, কক্সবাজার জেলা প্রশাসক জানিয়েছেন, কয়েক দিনের মধ্যে দুই থেকে তিন হাজার রোহিঙ্গাকে ভাসানচরে স্থানান্তর করা হবে। তবে বিশেষজ্ঞরা বলছেন, সেখানে নেয়ার পর রোহিঙ্গারা পালাতে চাইলে সংকট বাড়বে।

জেলার পরিবেশ, আর্থসামাজিক অবস্থা ও আইন-শৃঙ্খলা হুমকিতে রয়েছে। রোহিঙ্গাদের একটি অংশকে ভাসানচরে পাঠাতে চায় সরকার। কিন্তু, বাধ সেদেছে, জাতিসংঘসহ বিভিন্ন দেশি-বিদেশি এনজিও। ফলে, ২০-২২টি দেশি এনজিওকে ভাসানচর দেখাতে নিয়ে যায়, সরকার। ঘুরে এসে জানায়, রোহিঙ্গাদের এখানে স্থানান্তরের পর কাজ করতে আগ্রহী তারা।

তবে, দেশীয় এনজিওর মধ্যে কক্সবাজারের ক্যাম্পে সবচেয়ে বেশি সংখ্যক রোহিঙ্গাদের নিয়ে কাজ করে ব্র্যাক। ব্র্যাকের সিনিয়র পরিচালক কে এম মোরশেদ জানান, ভাসানচরে খুব বেশি রোহিঙ্গা না গেলে সেখানে তাদের কার্যক্রম চালানোর তেমন সুযোগ নেই।

শরণার্থী ও অভিবাসন বিশেষজ্ঞ আসিফ মুনির বলেন, ভাসানচরে নেয়ার পরও, যদি রোহিঙ্গারা পালানোর চেষ্টা করে তাতে এই সংকট বরং আরও বাড়বে।

সবকিছু ঠিক থাকলে ডিসেম্বরেই অন্তত ৫০০ রোহিঙ্গাকে স্থানান্ততের মাধ্যমে শুরু হবে ভাসানচরে নেবার প্রক্রিয়া। চ্যানেল২৪

পাঠকের মতামত: