কক্সবাজার, সোমবার, ১৫ এপ্রিল ২০২৪

জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদপ্তরে স্থাপিত হলো ‘বঙ্গবন্ধু কর্ণার’

নিজস্ব প্রতিবেদক

২৬ মার্চ মহান স্বাধীনতা দিবসে কক্সবাজার জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদপ্তরে স্থাপিত হলো ‘‘বঙ্গবন্ধু কর্ণার’’। জাতীয় সংসদের হুইপ সাইমুম সরওয়ার কমল আজ মঙ্গলবার সেটি উদ্বোধন করেন।

দেশপ্রেম,শহীদের আত্মত্যাগ, বঙ্গবন্ধু ও জাতীয় চার নেতার প্রতি গভীর শ্রদ্ধা ও প্রজন্মকে মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় উদ্বুদ্ধ করার লক্ষ্যে কক্সবাজার জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদপ্তর এটি স্থাপন করেন বলে জানায়।

নির্বাহী প্রকৌশলী জনাব মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান বলেন আমার কাছে ‘‘বঙ্গবন্ধু’’ একটি চেতনার নাম, একটি দেশপ্রেমের নাম, জাতি-ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে সকলকে নিয়ে সুখি ও সমৃদ্ধ বাংলাদেশ গঠনের নাম।
তিনি ভবিষ্যৎ প্রজন্মকে মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে সামনে রেখে দেশপ্রেমের চেতনায় উদ্বুদ্ধ হয়ে বাংলাদেশকে একটি স্মার্ট বাংলাদেশে রুপান্তর করায় প্রত্যাশা ব্যক্ত করেন। সবাইকে বলতে হবে ‘‘ আমি মাথা উচিয়ে দাড়িয়ে থাকবো বিশ্ব মানচিত্রে’’

‘বঙ্গবন্ধু কর্ণার’ উদ্বোধনে উপস্থিত ছিলেন প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ, কক্সবাজারের জনস্বাস্থ্য প্রকৌশলের সকল কর্মকর্তা-কর্মচারী এবং সংশ্লিষ্ট সকল পরামর্শক ও ঠিকাদারবৃন্দ।

৭১ এর মহান মুক্তিযুদ্ধ, মুক্তিযুদ্ধের পূর্ববর্তী ও পরবর্তী সকল শহীদের প্রতি, সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙ্গালী জাতীর পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও তাঁর পরিবারের সকল শহীদের প্রতি, জাতীয় চার নেতার প্রতি গভীর শ্রদ্ধা এবং তাঁদের আত্মত্যাগকে চিরস্বরনীয় করে তাঁদের দেশপ্রেমের চেতনাকে ধারন করে একটি সুখি ও সমৃদ্ধ বাংলাদেশ গঠনে ভবিষ্যৎ প্রজন্মকে মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় উদ্বুদ্ধ করার লক্ষ্যে ডিপিএইচই, কক্সবাজারের এই ক্ষুদ্র প্রয়াস ‘‘বঙ্গবন্ধু কর্ণার’’।

পাঠকের মতামত: