কক্সবাজার, শুক্রবার, ২১ জুন ২০২৪

নিউজিল্যান্ডের মাটিতে প্রথমবারের মতো টি-টোয়েন্টি ম্যাচ জিতল বাংলাদেশ

কিউইদের বিপক্ষে সিরিজের প্রথম টি-টোয়েন্টি ম্যাচে বল হাতে দুর্দান্ত পারফরম্যান্স করেছে টাইগাররা। টস হেরে আগে ব্যাট করতে নেমে ৯ উইকেট হারিয়ে ১৩৪ রান করেছিল কিউইরা। নিউজিল্যান্ডে এখন পর্যন্ত টানা ৯টি ম্যাচ হেরে প্রথমবারের মতো টি-টোয়েন্টিতে জয়ের দেখা পায় বাংলাদেশ। টাইগাররা৫ উইকেটের জয়ে ইতিহাস গড়ে সিরিজ শুরু করেছে।

বুধবার (২৭ ডিসেম্বর) টস হেরে আগে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৯ উইকেট হারিয়ে ১৩৪ রান তুলে নিউজিল্যান্ড। জবাবে খেলতে নেমে ১৮ ওভার ৪ বলে ৫ উইকেট হারিয়ে জয়ের বন্দরে পৌঁছে যায় বাংলাদেশ।

নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজের প্রথম টি-টোয়েন্টি ম্যাচে টস জিতে বোলিং করার সিদ্ধান্ত নেয় বাংলাদেশ। টাইগার বোলারদের আগুনে বোলিংয়ে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৯ উইকেট হারিয়ে ১৩৪ রানের সংগ্রহ গড়ে ব্ল্যাকক্যাপসরা।

কিন্তু ১৩৫ রানের জয়ের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে শুরুটা ভালো হয়নি টাইগারদেরও। ওপেনার রনি তালুকদার শুরুতেই আউট হওয়ার পর শান্তও ফিরেছেন দ্রুতই। এরপর টাইগার ব্যাতারদের কেউই আজ নিজের ইনিংস বড় করতে পারেননি। ক্রিজে থিতু হয়েও ফিরেছেন সৌম্য সরকার, এরপর একই পথে হাঁটেন তাওহিদ হৃদয়।

হৃদয় ফেরার পর দলের হার ধরতে মাঠে নেমেছিলেন আফিফ হোসেন। তবে তিনিও ব্যর্থ হয়েছেন।

এর আগে নিউজিল্যান্ড ব্যাটিং করতে নেমে মেহেদী, শরীফুল ও মোস্তাফিজের ১২ ওভারে ৫৫ রান তুলতেই ৭ উইকেট হারায় নিউজিল্যান্ড। নিয়মিত উইকেট হারানোর ফাকেও আজ ব্যাট হাতে কিউইদের হাল ধরেছিলেন জেমস নিশাম। একপ্রান্তে টাইগার বোলারদের সামলে দ্রুত রান তুলেছেন তিনি।

তবে শেষ পর্যন্ত তিনিও ফিরেছেন মুস্তাফিজের বলে ক্যাচ তুলে দিয়ে। তবে সাজঘরে ফেরার আগে ২৯ বলে ৪৮ রান। ৪ চার এবং ৩ ছয়ে এ রান করেন তিনি। নির্ধারিত ২০ ওভারে অ্যাডাম মিলনের ১২ বলে ২ ছয়ে করা ১৬ রানের সুবাদে ৯ উইকেট হারিয়ে ১৩৪ রানের সংগ্রহ গড়ে নিউজিল্যান্ড।

টাইগার বোলারদের হয়ে আজ ৩টি উইকেট নিয়েছেন শরিফুল ইসলাম। টপ অর্ডার ব্যর্থতার দিনে জিমি নিশাম ছাড়া আর কেউই বলার মতো কিছু করতে পারেনি। তাতে দেড়শো রানও করতে পারেনি কিউইরা।

নিউজিল্যান্ডে টানা ১৮ ম্যাচে হারের পর প্রথমবারের মতো ওয়ানডেতে জয়ের দেখা পায় বাংলাদেশ। এবার কিউইদের মাটিতে টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে তাদের কাছে টানা ৯টি ম্যাচ হেরে জয়ের দেখা পেল  টাইগাররা।

পাঠকের মতামত: