কক্সবাজার, শনিবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১

নিজ ঘরে মিলল প্রবাসী স্ত্রীর গলাকাটা মরদেহ

ঢাকার সাভারে নিজ ঘর থেকে এক সিঙ্গাপুর প্রবাসীর স্ত্রী রুমা আক্তার নামে এক গৃহবধূর গলাকাটা মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। তবে পুলিশের ধারণা, নিহতের পরিচিত কেউ তাকে হত্যার পর স্বর্ণালংকার নিয়ে পালিয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২ সেপ্টেম্বর) সকালে পৌরসভার রাজাশন মহল্লার বাবা মহিউদ্দিন মোল্লার বাড়ি থেকে ওই নারীর  মরদেহ উদ্ধার করা হয়। নিহত রুমা আক্তার রাজধানীর মিরপুর এলাকার সিঙ্গাপুর প্রবাসী মোবারক হোসেনের স্ত্রী।

নিহতের দূর সম্পর্কের চাচা ইব্রাহিম খলিল বলেন, রুমার শ্বশুরবাড়ি মিরপুরে। এখানে তার বাবা সম্পত্তি ভাগ করে দেওয়ার পর আলাদা করে টিনশেডের বাড়ি বানিয়ে ভাড়া দিয়েছে। পাশের বাড়িতে তার বাবা-মা থাকে। রুমার স্বামী সিঙ্গাপুরে থাকার কারণে রুমা মাঝেমধ্যেই এই বাড়ির একটি কক্ষে এসে থাকত। তার পাশের রুমে থাকে তার ছোট ভাই। এক সপ্তাহ আগে রুমা ১৫ বছরের মেয়েকে নিয়ে বাবার বাড়িতে বেড়াতে আসে। কয়েক দিন আগে রুমার মেয়েটা তার খালার বাড়িতে যায়। গতকাল রাতে রুমা ওই ঘরে একাই ছিল। আজ ভোর রাতে ভাড়াটিয়াদের একজন ঘুম থেকে ওঠে রুমার ঘরের দরজা খোলা দেখতে পায়। এ সময় পাশের ঘর থেকে রুমার ছোট ভাইকে ডেকে তোলে। পরে খবর পেয়ে সকাল ৭-৮টার দিকে পুলিশ এসে মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য রাজধানীর শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠায়।

কী কারণে রুমাকে হত্যা করা হয়ে থাকতে পারে এমন প্রশ্নে তিনি বলেন, আমরা কিংবা রুমার বাবা-মা কখনোই ওর খারাপ কিছু দেখিনি। সম্পত্তির ভাগাভাগি নিয়ে ঝামেলা আছে কি না জানি না। আবার গোপনে কারো সঙ্গে পরকীয়ার সম্পর্ক ছিল কি না, আল্লাহ ভালো জানেন।

সাভার মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কাজী মাইনুল ইসলাম বলেন, দুর্বৃত্তদের বাইরে থেকে আনা কিছু ফল, কেকসহ খাবার ওই কক্ষে আলামত হিসেবে পাওয়া গেছে। হত্যার পর কিছু স্বর্ণও নিয়ে গেছে তারা। আমাদের ধারণা, পরিচিতজনরাই কোনো কারণে ওই নারীকে পরিকল্পনা করে হত্যা করেছে। আমরা শিগগির ঘটনার রহস্য উদঘাটন করব। এ ঘটনায় একটি হত্যা মামলার প্রস্তুতি চলছে।

পাঠকের মতামত: