কক্সবাজার, শনিবার, ২৩ অক্টোবর ২০২১

বন্দরের বহির্নোঙ্গরে দুই ইউক্রেন নাবিকের মৃত্যু

চট্টগ্রাম বন্দরের বহির্নোঙ্গরে অবস্থানরত একটি সারবাহী জাহাজে দুই ইউক্রেন নাগরিক মারা গেছেন। এর মধ্যে একজন জাহাজেই মারা যায় এবং অপরজন অসুস্থ হলে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য আনা হলে সেখানে মারা যায়।

চট্টগ্রাম বন্দর সূত্র জানায়, বেলারুশ ও মিসর থেকে ইউরিয়া সার নিয়ে মারসাল আইল্যান্ড পতাকাবাহী কার্গো জাহাজ এমভি আসতারিয়া গত ১৯ সেপ্টেম্বর চট্টগ্রাম বন্দরের বহির্নোঙ্গরে পৌছে। যার মধ্যে চট্টগ্রামের জন্য ৩৫ হাজার মেট্রিক টন এবং মংলার জন্য ২০ হাজার মেট্রিক টন ইউরিয়া সার ছিল। পণ্য খালাসরত অবস্থায় গত ৩০ জুন বৃহস্পতিবার বিকেল প্রায় সাড়ে ৪টার দিকে এক ইউক্রেন নাবিকে তার কেবিনে মৃত্যুবরণ করেন। তার ঠিক তিন ঘণ্টা পর সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে ওই জাহাজের সেকেন্ড ইঞ্জিনিয়ারও অসুস্থ হয়ে পড়েন। পরে শিপিং এজেন্টর সহায়তায় তাকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নিয়ে আসা হয়। সেখানেই ওই ইউক্রেন ইঞ্জিনিয়ারের মৃত্যু হয়। এ ঘটনা পতেঙ্গা থানায় একটি জিডি করা হয়েছে।

নাবিকদের মৃত্যু ও অসুস্থতার ব্যাপারে তাৎক্ষণিক কোন কারণ জানাতে পারেননি ওই জাহাজের নিয়োজিত ক্যাপ্টেন। এ ঘটনায় চট্টগ্রাম বন্দরের স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ও ইন্টারপোর্ট এর প্রতিনিধিগণ জাহাজটি পরিদর্শন করেছেন। দুই নাবিকের লাশ আইনগত নিয়ম মেনে তাদের দেশে পাঠানোর ব্যাবস্থা করা হচ্ছে বলে জানান বন্দর সূত্র।

পাঠকের মতামত: