কক্সবাজার, সোমবার, ৩০ নভেম্বর ২০২০

রিজেন্টের এমডি মিজান ১০ দিনের রিমান্ডে

ট্রোরেলের ৭৬ শ্রমিককে ভুয়া করোনাভাইরাসের নেগেটিভ রিপোর্ট দেওয়ার অভিযোগের মামলায় গ্রেপ্তার রিজেন্ট হাসপাতালের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) মিজানুর রহমানের ১০ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।

আজ শনিবার মামলার তদন্ত কর্মকর্তা উত্তরা পশ্চিম থানার উপপরিদর্শক (এসআই) ইয়াদুর রহমান এ আসামিকে আদালতে হাজির করে ১০ দিনের রিমান্ড আবেদন করেন।

ঢাকা মহানগর হাকিম মইনুল ইসলাম শুনানি শেষে ১০ দিনেরই রিমান্ডের আদেশ দেন।

রাষ্ট্রপক্ষের সহকারি পাবলিক প্রসিকিউটর হেমায়েত উদ্দিন খান (হিরণ) শুনানি করেন। তিনি বলেন, ‘আসামি করোনা টেস্টের নামে ৭৬ জন শ্রমিকের কাছ থেকে সাড়ে তিন হাজার করে টাকা নেন। পরীক্ষা না করে সেগুলো ডাস্টবিনে ফেলে দেন। পুলিশ তার ১০ দিনের রিমান্ড আবেদন করেন। আদালত তার ১০ দিনেরই রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন।

এর আগে গতকাল শুক্রবার দিবাগত রাতে গোপালগঞ্জের একটি বাসা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করে উত্তরা পশ্চিম থানা পুলিশ।

এর আগে, মেট্রোরেল প্রকল্পে কর্মরত ৭৬ জন কর্মীকে ভুয়া করোনা রিপোর্ট দেওয়ার অভিযোগে গত ২০ জুলাই দিনগত রাতে রাজধানীর উত্তরা পশ্চিম থানায় রিজেন্ট হাসপাতালের চেয়ারম্যান মো. সাহেদ করিমসহ হাসপাতালের কয়েকজনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়। মেট্রোরেলের একটি সাব-কন্ট্রাক্টর প্রতিষ্ঠানের পক্ষে রেজাউল করীম বাদী হয়ে এ মামলাটি দায়ের করেন।

মামলার অভিযোগে বলা হয়, মেট্রোরেলে কর্মরত ৭৬ জন কর্মীর করোনা পরীক্ষা করা হয় রিজেন্ট হাসপাতালে। এজন্য পরীক্ষা প্রতি সাড়ে তিন হাজার করে টাকা নেয়া হয়। কিন্তু টেস্ট না করেই ভুয়া রিপোর্ট দেওয়ায় কর্মীদের মধ্যে করোনা সংক্রমণ বেড়েছে।

পাঠকের মতামত: