কক্সবাজার, রোববার, ৩ মার্চ ২০২৪

রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ফাইভ মার্ডারের ঘটনায় অস্ত্রসহ গ্রেপ্তার ৬

কক্সবাজারের উখিয়ার রোহিঙ্গা ক্যাম্প থেকে ৬ জন রোহিঙ্গা দুষ্কৃতিকারীকে অস্ত্র ও গুলিসহ গ্রেপ্তার করেছে ৮-আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়ন (এপিবিএন)।

রোহিঙ্গা ক্যাম্পে মিয়ানমারের বিদ্রোহী সশস্ত্র সন্ত্রাসী গ্রুপ আরসা-আরএসও’র মধ্যে সংঘটিত গোলাগুলিতে ফাইভ মার্ডারের ঘটনায় জড়িত সন্দেহে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

এ সময় তাদের কাছ থেকে একটি ওয়ান শুটার গান ও এক রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়।

শুক্রবার (৭ জুলাই) রাতে উখিয়ার বালুখালী রোহিঙ্গা ৮ ওয়েস্ট রোহিঙ্গা ক্যাম্পে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।

গ্রেপ্তারকৃতরা হল, উখিয়ার বালুখালী ৮ ওয়েস্ট রোহিঙ্গা ক্যাম্পের আব্দুল হাকিমের ছেলে মোহাম্মদ ফোরকান (২৩), খাইরুল বশরের ছেলে মোহাম্মদ জুবায়ের (২৯), মৃত ফকির আহমদের ছেলে বি রহমান (৩৪), ৯ নম্বর রোহিঙ্গা ক্যাম্পের মোস্তাক আহমেদের ছেলে এনাম উল্লাহ (২৩), শাকের উল্লাহর ছেলে এবাদত উল্লাহ (২৫) ও ১০ নম্বর ক্যাম্পের বাসিন্দা মোহাম্মদ শাকেরের ছেলে আরিফ উল্লাহ (৩০)।

৮-এপিবিএনের সহকারী পুলিশ সুপার ফারুক আহমেদ সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, ৫ রোহিঙ্গা হত্যাকাণ্ডের সাথে জড়িত থাকার সন্দেহে রাতে ক্যাম্পে অভিযান চালিয়ে অস্ত্র গুলিসহ ৬ রোহিঙ্গা সন্ত্রাসীকে গ্রেপ্তার করা হয়।

উখিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ মোহাম্মদ আলী বলেন, ভুক্তভোগী পরিবারের পক্ষ থেকে কোন ধরনের অভিযোগ জমা না দেয়ায় এখনো পর্যন্ত মামলা রেকর্ড করা হয়নি।

উল্লেখ্য, গত বৃহস্পতিবার বালুখালী রোহিঙ্গা ক্যাম্পে আরসা-আরএসও সন্ত্রাসী বাহিনীর মধ্যে প্রচন্ড গোলাগুলি হয়। ওইসময় ৫ জন আরসা সদস্য নিহত হয়।

পাঠকের মতামত: