কক্সবাজার, মঙ্গলবার, ১৩ এপ্রিল ২০২১

সিনহা হত্যা: বোনের করা মামলার চার্জশিট গ্রহণ

অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা হত্যার ঘটনায় তার বোনের দায়ের করা মামলায় তদন্ত কর্মকর্তার দাখিল করা চার্জশিট আদালত গ্রহণ করেছেন।

এতে পলাতক আসামি টেকনাফ থানার সাবেক এএসআই সাগর দেবের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করা হয়েছে। এ ছাড়া একই ঘটনায় টেকনাফ থানায় পুলিশের দায়ের করা দুটি মামলায় দাখিল করা চূড়ান্ত প্রতিবেদন গ্রহণ করে আসামি সাইদুল ইসলাম সিফাতকে মামলা থেকে আদালত অব্যাহতি দিয়েছেন।
সোমবার (২১ ডিসেম্বর) বেলা সাড়ে ১১টায় কক্সবাজারের জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম তামান্না ফারাহ এ আদেশ দেন।

বাদীপক্ষের আইনজীবী সৈয়েদুর রহমান জানান, অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা হত্যার ঘটনায় বোন শারমিন শাহরিয়ার ফেরদৌস বাদী হয়ে দায়ের মামলার শুনানির নির্ধারিত দিনে তদন্ত কর্মকর্তার দাখিল করা চার্জশিট আদালত গ্রহণ করেছে। এতে চার্জশিটভুক্ত ১৫ আসামির মধ্যে পলাতক থাকা টেকনাফ থানার সাবেক এএসআই সাগর দেবের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেছেন। অন্যদিকে সিনহা হত্যার ঘটনায় টেকনাফ থানায় পুলিশের দায়ের ২টি মামলার শুনানির নির্ধারিত দিনে দাখিল করা চূড়ান্ত প্রতিবেদন গ্রহণ করে আসামি থেকে সাইদুল ইসলাম সিফাতকে মামলা থেকে আদালত অব্যাহতি প্রদান করেছেন।
আদালতে রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন পিপি ফরিদুল আলম।
উল্লেখ্য, গত ৩১ জুলাই টেকনাফ উপজেলার বাহারছড়া ইউনিয়নের শামলাপুর চেকপোস্টে পুলিশের গুলিতে নিহত হন অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খান। এ ঘটনায় পুলিশ বাদী হয়ে টেকনাফ থানায় সিফাতের বিরুদ্ধে ২টি এবং রামু থানায় শিপ্রা দেবনাথের বিরুদ্ধে ১টি মামলা দায়ের করে। এরপর গত ৫ আগস্ট সিনহার বোন বাদী হয়ে আদালতে ৯ জনের বিরুদ্ধে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। গত ৬ আগস্ট পুলিশের ৭ সদস্য আদালতে আত্মসমর্পণ করেন। কিন্তু মামলার অপর ২ জনের পরিচয় সন্ধান মিলেনি। মামলার তদন্তকালে র‌্যাব পুলিশের মামলার ৩ সাক্ষী, এপিবিএন এর ৩ সদস্য এবং পুলিশের এক কনস্টেবলকে গ্রেফতার করে।
তদন্ত শেষে গত ১৩ ডিসেম্বর মামলার অভিযোগপত্রটি আদালতে দাখিল করা হয়। যাতে ১৫ জনকে অভিযুক্ত করা হয়। একই সঙ্গে পুলিশের করা ৩টি মামলার চূড়ান্ত প্রতিবেদনও দাখিল করে তদন্তকারী র‌্যাব কর্মকর্তা।

পাঠকের মতামত: