কক্সবাজার, মঙ্গলবার, ২৬ অক্টোবর ২০২১

স্বাস্থ্যের সাবেক গাড়িচালক মালেকের স্ত্রী কারাগারে

দুর্নীতির মামলায় স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের সাবেক গাড়িচালক মো. আবদুল মালেকের স্ত্রী নার্গিস বেগমকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দিয়েছেন আদালত। আজ বৃহস্পতিবার (২৩ সেপ্টেম্বর) ঢাকা মহানগরের জ্যেষ্ঠ বিশেষ জজ কে এম ইমরুল কায়েস এই আদেশ দেন।

এদিন আদালতে আইনজীবীর মাধ্যমে আত্মসমর্পণ করে জামিন আবেদন করেন নার্গিস বেগম। তার পক্ষে আইনজীবী শাহিনুর ইসলাম জামিন শুনানি করেন।

দুদকের পক্ষে প্রসিকিউটর মাহমুদ হোসেন জাহাঙ্গীর জামিনের বিরোধিতা করেন। উভয়পক্ষের শুনানি শেষে আদালত জামিন নামঞ্জুর করে তাকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন। দুদকের কোর্ট ইন্সপেক্টর আমিনুল ইসলাম এ তথ্য জানান।

জ্ঞাত আয়বহির্ভূত সম্পদ অর্জন ও তথ্য গোপনের অভিযোগে গত ১৫ ফেব্রুয়ারি আবদুল মালেক ও তার স্ত্রী নার্গিসের বিরুদ্ধে দুটি মামলা করে দুদক। সম্প্রতি এই দুই মামলায় অভিযোগপত্র অনুমোদন করেছে দুদক।

মামলার এজাহারে দুদকের পক্ষ থেকে বলা হয়, আসামি আবদুল মালেক দুদকে দাখিল করা সম্পদের বিবরণীতে ৯৩ লাখ ৫৩ হাজার ৬৪৮ টাকা মূল্যের স্থাবর ও অস্থাবর সম্পদ অর্জনের তথ্য গোপন করেন। তিনি তার জ্ঞাত আয়ের উৎসবহির্ভূত ১ কোটি ৫০ লাখ ৩১ হাজার ৮১০ টাকা মূল্যের স্থাবর ও অস্থাবর সম্পদ অর্জন করে তা ভোগদখলে রেখেছেন।

নার্গিস বেগমের বিরুদ্ধে করা মামলায় দুদকের পক্ষ থেকে দাবি করা হয়, মালেক ও নার্গিস বেগম জ্ঞাত আয়ের উৎসের সঙ্গে অসংগতিপূর্ণ ১ কোটি ১০ লাখ ৯২ হাজার ৫০ টাকা মূল্যের স্থাবর ও অস্থাবর সম্পদ ভোগদখলে রাখায় পরস্পরকে প্রত্যক্ষভাবে সহায়তা করেন।

পাঠকের মতামত: