কক্সবাজার, শুক্রবার, ২৭ নভেম্বর ২০২০

২০২২ সালে অনুষ্ঠিত হবে দুই ‘বিশ্বকাপ’!

করোনার কারণে থেমে আছে সব ধরনের খেলা। তবে ইউরোপীয় ফুটবল কিছুটা শুরু হয়েছে। এই চলার পথ মসৃণ করার চেষ্টা করছে ফিফা ও উয়েফা। এরমধ্যেই বড় খবর সামনে এলো। ২০২২ সালে ফুটবলের ইতিহাসে ঘটতে যাচ্ছে চমক। কারণ, ওই বছর দুই ‘বিশ্বকাপ’ আয়োজন করতে চায় বিশ্ব ফুটবলের নিয়ন্ত্রক সংস্থা।

করোনার কারণে ফুটবলের শিডিউল পরিবর্তন হয়ে গেছে। তবে এটা নিশ্চিত যে, ২০২২ সালের শীতে কাতারের মাটিতে বসবে ফুটবল বিশ্বকাপের আসর। একই বছর গ্রীষ্মে বসবে ক্লাব বিশ্বকাপের আসর। এই পরিকল্পনা খোদ ফিফা প্রেসিডেন্ট জিয়ান্নি ইনফান্তিনোর মাথা থেকে এসেছে। যাতে সায় দিয়েছে উয়েফাও। স্প্যানিশ সংবাদমাধ্যম ‘মার্কা’ এমনটাই জানিয়েছে।

মধ্যপ্রাচ্যের দেশ কাতারের তীব্র গরমের কথা চিন্তা করে প্রথমবারের মতো শীতকালে বসবে ফুটবল বিশ্বকাপের আসর। এর ফলে ফুটবলীয় সূচিতে ব্যাপক পরিবর্তন আসবে। বিশেষ করে ক্লাব ফুটবলে। কমপক্ষে ২০২৩-২৪ মৌসুমের আগে এই সূচি স্বাভাবিক হওয়ার কোনো সম্ভাবনা নেই বললেই চলে। এর প্রভাব পড়বে ইউরোপিয়ান চ্যাম্পিয়নশিপেও।

করোনার কারণে ১৮ মাস পিছিয়ে ২০২১ সালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে এবারের ইউরোপিয়ান চ্যাম্পিয়নশিপের আসর। কাছাকাছি সময়ে চীনে বসার কথা ছিল ক্লাব বিশ্বকাপের আসর। করোনার কারণে এই আসরও এক বছর পিছিয়ে দেওয়া হয়েছে। ওই আসরে ২৪টি ক্লাব অংশগ্রহণের জন্য পাবে ২০ মিলিয়ন ইউরো আর কোনো ক্লাব শিরোপা জিতলে পাবে বাড়তি আরও ১০০ মিলিয়ন ইউরো।

সবকিছু ঠিক থাকলে, ক্লাব বিশ্বকাপের আগামী আসরে ইউরোপের ৮টি ক্লাবের সঙ্গে অংশ নেবে দক্ষিণ আমেরিকার ৬টি ক্লাব। বাকি জায়গাগুলো পূরণ করবে কনকাকাফ, এশিয়া, আফ্রিকা এবং ওশেনিয়া অঞ্চলের ক্লাবগুলো।

পাঠকের মতামত: