কক্সবাজার, শুক্রবার, ২৭ নভেম্বর ২০২০

উখিয়ায় গৃহহীন পরিবারের আহাজারি

নিজস্ব প্রতিবেদক:: 

উখিয়ার পালংখালী ইউনিয়নের কতিপয় ইয়াবা পাচারকারী সিন্ডিকেটের দৌরাত্ব আশংকাজনক ভাবে বেড়ে গেছে। এসব পাচারকারী চক্র আইনপ্রয়োগকারী সংস্থার সোর্সের নাম ভাঙ্গিয়ে ইয়াবা কারবারিদের নিকট থেকে মোটা অংকের চাঁদা আদায়ের পাশাপাশি পাড়া গ্রামে নিরীহ জন সাধারণকে আর্থিক ও মানসিক ভাবে
হয়রানি করে আসছে। রহমতের বিল গ্রামের একটি বসতবাড়িতে ইয়াবা আছে মর্মে মিথ্যা তথ্য
উপস্থাপন করে বসতবাড়ি ভাংচুর, কুড়াকুড়ি করে নিরীহ পরিবারদের বাড়ি থেকে বের করে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে। গৃহহীন পরিবারটি তাদের উপর চালিয়ে যাওয়া নির্মমতার বিষয়টি উপজেলা নিবার্হী কর্মকর্তার নিকট অবহিত করতে এসে স্থানীয় সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন। দুবর্ৃত্তরা ইতিপূর্বেও তাদের উপর মানসিক ভাবে নির্যাতন করেছে বলে ওই ভুক্তভোগী পরিবারের অভিযোগ। গৃহহীন রহমতের বিল গ্রামের কলিমুল্লাহর ছেলে কামাল উদ্দিনের স্ত্রী তৈয়বা বেগম কান্না জড়িত কণ্ঠে সাংবাদিকদের জানান, রহমতের বিল গ্রামের ইয়াবা কারবারি সিন্ডিকেটের গ্যাং লিডার জামাল উদ্দিন, কালা পুতিয়া, খাইরুল বশর, নুরুল
বশর ও মোঃ শাহজাহান সহ ৭ জনের একটি সিন্ডিকেট তাদেরকে বিভিন্ন সময়
ইয়াবা কারবার করেছে মর্মে অহেতুক হয়রানি করে আসছিল।

পারিবারিক শত্রুতার জের ধরে ওই সন্ত্রাসীরা বুধবার দুপুর ৩টা থেকে গভীর রাত
পর্যন্ত তাদের বাড়ীতে হানা দিয়ে আসবাবপত্র মালামাল তছনছ করে দেয়। এক পর্যায়ে
তারা বাড়ির ভিতরে ও বাইরে উঠান কুড়াকুড়ি করে রাত যাপনের পরিবেশ নষ্ট করে দেয়।
এসময় বাঁধা দিতে গেলে সন্ত্রাসীরা এলোপাতাড়ি মারধর করে ছেলে মেয়েসহ তাদেরকে বাড়ি থেকে বের করে দেয়। এলাকার শত শত মানুষ সন্ত্রাসীদের অপকর্ম প্রত্যক্ষ করলেও ভয়ে কেউ এগিয়ে আসেনি।
নাম প্রকাশ না করার শর্তে এলাকার বেশ কয়েকজন গ্রামবাসী জানান, তারা
নিরীহ পরিবার, দিনে এনে দিনে খায় এমন সংকটাপন্ন সংসার জীবন নিয়ে পরিবারটি কোন রকম দিনযাপন করে আসছিল। এলাকার প্রভাবশালী একদল ইয়াবা কারবারি সিন্ডিকেট আইনপ্রয়োগকারী সংস্থার সোর্সের নাম ভাঙ্গিয়ে যে ঘটনাটি করেছে তা মারাত্মক অপরাধযোগ্য। গ্রামবাসী উক্ত নিরীহ পরিবারের উপর নিমর্ম নিষ্ঠুরতার বিচার দাবী করেছে। হত দরিদ্র ভুক্তভোগী পরিবারের গৃহবধু তৈয়বা বেগম জানায়, তাদেরকে এলাকা থেকে চলে যাওয়ার নির্দেশ দিয়েছে অন্যথায় হত্যা করে লাশ গুম করে ফেলার হুমকি প্রদর্শন করেছে।

পাঠকের মতামত: