কক্সবাজার, শুক্রবার, ২১ জানুয়ারী ২০২২

‘আঁধারে হারিয়ে যাবো’ ফেসবুক স্ট্যাটাসে লিখেছিলেন বাসচাপায় নিহত শিক্ষার্থী

রাজধানীর রামপুরায় সোমবার (২৯ নভেম্বর) রাতে অনাবিল বাসের চাপায় মাইনুদ্দিন ইসলাম নামে এক শিক্ষার্থীর মৃত্যু হয়েছে। রাস্তা পার হওয়ার সময় দুটি বাসের প্রতিযোগিতায় চাপা পড়ে নিহত হয় সে। এক প্রত্যক্ষদর্শী জানান, রাস্তার পশ্চিম পাশ থেকে পূর্ব পাশে আসার সময় দুর্ঘটনাটি ঘটে। অনাবিল ও রাইদা পরিবহনের দুটি বাস প্রতিযোগিতা করছিল। অনাবিল বাসটি মাইনুদ্দিনকে চাপা দেয়।

ছেলেটির স্কুলের খাতায় নাম মঈন ইসলাম। রামপুরার একরামুন্নেছা স্কুল অ্যান্ড কলেজ থেকে এ বছর বাণিজ্য শাখা থেকে এসএসসি পরীক্ষা দিয়েছে সে। পড়াশোনা শেষ করে প্রশাসনের বড় কর্মকর্তা হতে চেয়েছিল। দুই ভাই ও এক বোনের মধ্যে মাঈনুদ্দিন সবার ছোট। বড় ভাই মনির ছোট একটি চাকরি করেন। মূলত সংসার চলে বাবার টিনের ছোট্ট চায়ের দোকানের আয় থেকেই। বড় ভাই ভালো কিছু না করার কারণে এ সংসারের হাল ধরতে চেয়েছিল সে।

এদিকে চলতি বছরের ২৯ জুন সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে মাইনুদ্দিনের দেওয়া একটি স্ট্যাটাস ভাইরাল হয়েছে। সেখানে তিনি লিখেছিলেন- ‘ঠিক ততটা আঁধারে হারিয়ে যাব, যতটা আঁধারে হারালে কেউ সন্ধান পাবে না।’ তার মৃত্যুর সংবাদ পাওয়ার পর পরই অনেকে সেই স্ট্যাটাসে কমেন্টস করা শুরু করেন। মাইনুদ্দিনের বন্ধু তালিকায় থাকা আবদুল আজিজ পাটোয়ারী লিখেন, এই কথাটা আজ সত্যি হলো।

জান্নাতুল মিষ্টি নামে আরেকজন লিখেন, সত্যি হারিয়ে গেল সমাজের কালো অন্ধকারে। মায়ের কোল থেকে চিরকালের দূরত্বে, বাবার সংস্পর্শের বাইরে। ভাই-বোনের থেকে অনেক দূরে বন্ধুদের মাঝে থেকেও হারিয়ে গেলে। এ দায়ভার কার? কবে বুঝব আমরা।

পাঠকের মতামত: