কক্সবাজার, শনিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২০

রামু কচ্ছপিয়ায় চেয়ারম্যান এর উদ্দেগে গর্জনিয়া বাজারে পরিচ্ছনতা অভিযান ও ত্রান বিতরণ

আমিনুল ইসলাম, নাইক্ষ্যংছড়ি::

নোভেল করোনা ভাইরাসের প্রার্দুভাব রোধে রামুর উপজেলার অধিকাংশ ও নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলা সদর সহ ৬ ইউনিয়নের মানুষের মিলনস্থান গর্জনিয়া বাজারের দূর্গন্ধময় পরিস্থিতি দূর করতে অবশেষে এগিয়ে এলেন কচ্ছপিয়ার চেয়ারম্যান ও গর্জনিয়া বাজার ব্যবসায়ী কল্যান সমিতি ও ব্যবস্থাপনা কমিটি। ৬ ইউনিয়নের ২ লাখ মানুষের জন্যে যৌথভাবে শুরু করেন বাজারের পরিচ্ছন্নতা অভিযান। এর পরে গরিব ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী এবং কর্মহীন মানুষের হাতে তুলে দিলেন খাদ্য সামগ্রী।
বুধবার (১ এপ্রিল) সকাল ১১ টায় যৌথভাবে শুরু করেন কচ্ছপিয়া ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আবু মোঃ ইসমাঈল নোমান,গর্জনিয়া বাজার ব্যবসায়ী কল্যান সমিতি ও গর্জনিয়া বাজার ব্যবস্থাপনা কমিটির নেতারা।

গর্জনিয়া বাজারের ব্যবসায়ীরা জানান,বাজারটিতে যেন ভোক্তা ও ব্যবসায়ীদের জন্য সহবাসস্তান বজায় রেখে চলতে পারে । এতদিন দূর্গন্ধময় পরিবেশে ছিল, সাধারন জনগন ও ব্যাবসয়িরা অতিষ্ট ছিল, তারা। কেউ এগিয়ে আসেনি।এদিকে ইজারাদারের বিরোদ্দে অভিযোগ করেছে আনেকে সাংবাদিকদের। আর এ অবস্থায় করোনা ভাইরাসের প্রার্দুভাব দেখা দিলে তারা বাজার পরিস্কার করছিলোনা।

সমগ্র বাজার র্দূগন্ধে ভরে যায়। অনেকে নানা রোগে আক্রান্ত পর্যন্ত হয়ে গেছে। আর করোনা না হলেও এ অবস্থায় এসবের জীবানু ছড়ানোর আশংকা রয়েছেই।

দেশের একমাত্র দূর্গন্ধময় বাজার ছিল এটি।
আর এ অবস্থায় দূরাবস্থা থেকে পরিত্রানের জন্যে এগিয়ে আসেন কচ্ছপিয়ার চেয়ারম্যান আবু মোঃ ইসমাঈল নোমান। তিনি সাংবাদিকদের জানান,সব দিক বিবেচনা করে,দেশের এ দূর্যোগময় মূর্হুতে সরকার প্রধান দেশরত্নন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী,এ আসনের মাননীয় সাংসদ ও ইউএনও মহোদয়ের নির্দেশে সব করে যাচ্ছেন। আর বর্তমানের করোনা ভাইরাসের (কোভিড-১৯) প্রার্দুভাব রোধে তিনি নানা উদ্যোগ গ্রহন করেন। বিশেষ করে অপরিচ্ছন্ন-অপরিস্কার গর্জনিয়া বাজারকে সুন্দর পরিচ্ছন্ন বাজারে পরিনত করে করোনাকে ব্যবসায়ী তথা আশপাশের ৬ ইউনিয়নের ২ লক্ষ মানুষকে বাচাঁতে তিনি কাজ শুরু করেছেন,তাই তিনি গর্জনিয়া বাজার ব্যবসায়ী কল্যান সমিতি ও ব্যবস্থাপনা কমিটিকে সাথে নিয়ে কর্মহীন,গরীব ব্যবসায়ীদের খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করেছেন। মাস্ক,হ্যান্ড ওয়াশ সহ নানা সামগী বিতরণ তথা বাজারের কর্ণারে কর্নারে ড্রাম সিষ্টেমের মাধ্যমে হাত ধৌত করণের ব্যবস্থা করেছেন সকলে যৌথভাবে।

তিনি আরো বলেন,সমিতির নেতারা অনেক আন্তরিক। তিনি প্রশাসন,ব্যবসায়ী,ভোক্তা, ইজারাদার, সাংবাদিক সহ সকলের সহযোগিতার মাধ্যমে বাজারকে করোনা ভাইরাস সংক্রমন রোধে যা দরকার তা করতে সকলের আন্তরিক সহযোগীতা ও দোয়া চেয়েছেন।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন গর্জনিয়া বাজার ব্যবসায়ী কল্যান সমিতির সভাপতি ইউনূছ সিকদার,সমিতির সিনিয়র নেতা যথাক্রমে বদিউল আলম সিকদার,জাকের আহমদ কোম্পানী,নুরুল আবছার মেম্বার,আবু তাহের কোম্পানী,সাংবাদিক মাঈনুদ্দিন খালেদ,সাংবাদিকদের মাঝে আরো উপস্থিত ছিলেন,সাংবাদিক আবদুল হামিদ,সাংবাদিক আবুল বশর নয়ন,সাংবাদিক জাহাঙ্গির আলম কাজল,সাংবাদিক আমিনুল ইসলাম,সাংবাদিক জয়নাল আবেদীন টুক্কু,সাংবাদিক আবদুর রশিদ,সাংবাদিক মো:ই্উনূছ,সাংবাদিকদের আবুল শাহমা,ব্যবসায়ী নেতা জাকের আহমদ (ডিশ ব্যবসায়ী),ডা: নেপাল,নজু সওদাগর, গিয়াসুদ্দিন,আহমদুল্লাহ ও বাজারের সকল ব্যবসায়ী।

ব্যবসায়ী নেতারা সপ্তাহব্যাপী করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে অত্র এলাকায় কাজ করতে ঘোষনা দেন। আজ ১ এপ্রিল কাজ শুরু করেন তারা।

পাঠকের মতামত: