কক্সবাজার, শনিবার, ২৩ জানুয়ারী ২০২১

উখিয়ার ইনানীতে স্থাপিত কোয়ারান্টাইন সেন্টারে ১১ তাবলীগ সদস্যসহ ১২ জনের আশ্রয়

ফারুক আহমদ, উখিয়া::   
উখিয়ার ইনানীতে স্থাপিত প্রাতিষ্ঠানিক  কোয়ারান্টাইন সেন্টারে ১২ জন কে রাখা হয়েছে। এদের মধ্যে নারায়ণগঞ্জ থেকে আসা তাবলিগ ফেরত ১১ জন ও জালিয়া পালংয়ের  চর পাড়ার আব্দু শুক্কুর। ৯ এপ্রিল বৃহস্পতিবার তাদের কে করোনা ভাইরাস পরীক্ষার জন্য নমূনা সংগ্রহ করবে বলে জানিয়েছেন উখিয়া স্বাস্হ বিভাগের কর্মকর্তা।

 জানা যায়,  গত  মঙ্গল বার  বেশ কয়েকজন তাবলীগ জামাতের সদস্য সদস্য টেকনাফে ফেরত আসেন। এরা এত দিন নারায়গঞ্জ সহ  দেশের বিভিন্ন  স্হানে  তাবলীগ জামায়াতের দাওয়াতের কাজে বের হয়েছিল।
অনেক দিন পর টেকনাফে আসলে বিষয়টি জানাজানি হয়। এমনকি সোশ্যাল মিডিয়ায় ব্যাপক ছাওর  হয়ে  উঠে। এদিকে বুধবার বিকেলে তাবলীগ ফেরত ওই  ১১ জনকে উপজেলা প্রশাসন ইনানীতে  স্থাপিত কোয়ারান্টাইনে নিয়ে আসেন। তাদেরকে সেখানে নিরাপদে রাখা হয়।
এদিকে উখিয়ার জালিয়া পালং ইউনিয়নের চর পাড়ায় আবদুস শুক্কর নামক জৈনক ব্যক্তি  ৮ এপ্রিল   বুধবার  এসে আশ্রয় নেন।  তিনি দীর্ঘ দিন ধরে কক্সবাজার বদ্যঘোনা নামক এলাকায় বসবাস করে আসছিলেন।
তার গতিবিধি ও শারীরিক অবস্থা দেখে সন্দেহ হলে স্হানীয় বাসিন্দারা প্রশাসনকে খবর দেন।
এমন খবর পেয়ে করোনা ভাইরাসের ঝুঁকি এড়াতে উপজেলা প্রশাসনের কর্মকর্তা ঘটনাস্হলে এসে আবদুস শুক্কুরকে কোয়ারান্টাইনে নিয়ে রাখে।
উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্মকর্তা  ইনানী কোয়ারান্টাইনে ১১ জন তাবলীগ জামায়াতের সদস্য সহ ১২ জন কে রাখার  সত্যতা নিশ্চিত করে বলেছেন  বৃহস্পতিবার সকলের করোনা
ভাইরাসের  পরীক্ষার নমুনা সংগ্রহ করা হবে।  তিনি আরো জানান,  বর্তমানে উখিয়া স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সেে  করোনা ভাইরাস পরীক্ষার  পর্যাপ্ত কীট  মজুদ রয়েছে।

পাঠকের মতামত: