কক্সবাজার, শুক্রবার, ২১ জানুয়ারী ২০২২

আজ ও কাল সেন্টমার্টিনে পর্যটক যেতে মানা

২৬ ডিসেম্বর চতুর্থ ধাপে কক্সবাজারের টেকনাফে সেন্টমার্টিন ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনের ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। এ উপলক্ষে সেন্টমার্টিনে রবি ও সোমবার পর্যটক প্রবেশে নিষেধজ্ঞা দিয়েছে উপজেলা প্রশাসন। সুষ্ঠু নির্বাচন অনুষ্ঠানের লক্ষ্যে বহিরাগত লোকজনের উপস্থিতি বন্ধ রাখতে ২৫ ও ২৬ ডিসেম্বর সেন্ট মার্টিনের সঙ্গে চলাচলকারী তিনটি নৌপথে পর্যটকবাহী জাহাজ চলাচল বন্ধ ঘোষণা করেছে জেলা প্রশাসন।

শনিবার (২৫ ডিসেম্বর) দ্বীপ থেকে সব পর্যটককে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন টেকনাফ উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) পারভেজ চৌধুরী।

তিনি বলেন, ইউপি নির্বাচন থাকায় নৌপথে টেকনাফ-সেন্ট মার্টিন, কক্সবাজার-সেন্টমার্টিন ও চট্টগ্রাম-সেন্ট মার্টিনের জাহাজ চলাচল বন্ধের নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। যেসব পর্যটক সেন্ট মার্টিন ছিলেন, তাদের অধিকাংশ শুক্রবার দ্বীপ ত্যাগ করেছেন। বাকিরা শনিবার দুপুরের মধ্যে দ্বীপ ত্যাগ নিশ্চিত করবেন।

তিনি আরও বলেন, ২৭ ডিসেম্বর থেকে পুনরায় তিনটি নৌপথে আবার স্বাভাবিক নিয়মে জাহাজ চলাচল করবে।

উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা ও সেন্ট মার্টিন ইউপির রিটার্নিং কর্মকর্তা মোহাম্মদ বেদারুল ইসলাম জানান, এ ইউপিতে চেয়ারম্যান পদে মুজিবুর রহমান (নৌকা), বর্তমান চেয়ারম্যান নুর আহমেদ (মোটরসাইকেল), আবদুর রহমান (চশমা), জাহিদ হোসেন (আনারস) ও সাবেক চেয়ারম্যান ফিরোজ আহমদ (টেলিফোন) প্রতীক নিয়ে নির্বাচন করছেন। পুরো ইউনিয়নের নয়টি কেন্দ্রে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। এ ইউপিতে মোট ৩ হাজার ৩৬৫ জন ভোটার রয়েছেন।

উপজেলা প্রশাসন ও বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌপরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআইডব্লিউটিএ) কর্তৃপক্ষ সূত্রে জানা যায়, টেকনাফ-সেন্ট মার্টিন নৌপথে সাতটি এবং সেন্ট মার্টিন-কক্সবাজার ও সেন্ট মার্টিন-চট্টগ্রাম নৌপথে একটি করে মোট নয়টি জাহাজ চলাচল করে। এসব জাহাজে প্রতিদিন প্রায় ১০ হাজার পর্যটক সেন্ট মার্টিন ভ্রমণ করছেন।

পাঠকের মতামত: