কক্সবাজার, শনিবার, ১৯ জুন ২০২১

ঈদগাঁওতে লেবুসহ নিত্যপণ্যের দাম আকাশ ছোঁয়া : বিপাকে রোজাদারেরা

রমজান মাসে কক্সবাজার সদরের ঈদগাঁওতে হঠাৎ করে বৃদ্বি পেল লেবুসহ নিত্যপণ্যের দাম। আকাশ ছোঁয়া প্রয়োজনীয় প্রতিটি জিনিস পত্রের। নেই সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের তদারকি। বিপাকে পড়েছে রোজাদারেরা।

ঈদগাঁও বাজার ঘুরে দেখা যায়, জিনিসপত্রের দামের ভিন্ন ভিন্ন চিত্র। একেক ব্যবসায়ী একেক দামে বিক্রি করছেন তরিতরকারীসহ প্রয়োজনীয় জিনিসপত্রাধি।

২০ টাকার শষা ৪০ /৫০ টাকা, ১৫/ ২০ টাকার টমেটো ৩০ /৪০ টাকা, লেবু জোড়া প্রতি ২০টাকায় বিক্রি হচ্ছে দেদারছে। সেই সাথে ঢেড়স,বেগুন,করলা,তিতকরলা, বরবটি,কচুর লতির দাম কেজিতে ১০/১৫ টাকা করেই বেড়েছে। মাছের দাম অতিরিক্ত। তবে কমেছে বয়লার মুরগী ও ডিমের দাম। চড়া দামে বিক্রি করছে ছোলা, তৈল, চিনিসহ খাদ্যসামগ্রীর দামও। দেখার যেন কেউ নেই।

একদিকে করোনা সংক্রমন রোধে লকডাউন ঘোষনা করেছে সরকার, অন্যদিকে নিত্যপ্রয়োজনীয় পন্যের চড়া দাম। আবার মানুষের মাঝে আয় রোজগার নেই। ত্রিমুখী সমস্যায় জর্জরিত বৃহত্তর ঈদগাঁওর সাধারন ও দৈনিক আয়ের উপর নির্ভরশীল খেটে খাওয়া মানুষ।

ঈদগাঁও থানার বৃহৎ এলাকার অসহায়,কর্মহীন, হত দরিদ্র লোকজন পবিত্র রমজান মাসে ভাল সেহেরী খেতে পারছেনা। সেই সাথে ইফতারীর আনুষাঙ্গিক জিনিসের দামও দ্বিগুন। স্বাদ থাকলেও স্বাধ্যের বাইরে এমনি অবস্থা।

দক্ষিন চট্রলার বৃহৎ বানিজ্যিক কেন্দ্র ঈদগাঁও বাজার মনিটরিং করে নিত্যপ্রয়োজনীয় পন্যের দাম স্বাভাবিক রাখার দাবী সচেতন মহলের।

পাঠকের মতামত: