কক্সবাজার, সোমবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০২১

কক্সবাজারে করোনার ভ্যাকসিন রেজিষ্ট্রেশন ৯৯৭১৫, নিয়েছেন ৭৯৯১৮ জন

মুহাম্মদ আবু সিদ্দিক ওসমানী::

কক্সবাজার জেলায় করোনার ভ্যাকসিন নেওয়ার জন্য গত ২৬ এপ্রিল পর্যন্ত রেজিষ্ট্রেশন করেছেন, মোট ৯৯ হাজার ৭১৫ নাগরিক। তারমধ্য, ভ্যাকসিনের প্রথম ডোজ গ্রহণ করেছেন মোট ৭৯ হাজার ৯ শত ১৮ জন। আবার এরমধ্যে, গত ২৭ এপ্রিল পর্যন্ত দ্বিতীয় ডোজ গ্রহণ করেছেন-৪৩ হাজার ৯ শত ৪ জন নাগরিক। প্রথম ডোজ নেওয়ার পর এখনো দ্বিতীয় ডোজ নিতে অবশিষ্ট আছেন ৩৬ হাজার ১৪ জন।

কক্সবাজারের সিভিল সার্জন ডা. মাহবুবুর এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি আরো জানান, সারাদেশের মতো কক্সবাজারেও গত ২৭ এপ্রিল থেকে করোনা ভ্যাকসিনের প্রথম ডোজ নেওয়ার জন্য রেজিষ্ট্রেশন কার্যক্রম সরকার বন্ধ করে দিয়েছে।

কক্সবাজার জেলা সদরে তিনটি প্রতিষ্ঠান-যথাক্রমে জেলা সদর হাসপাতাল, কক্সবাজার সিভিল সার্জনের কার্যালয় ও কক্সবাজার মেডিকেল কলেজকে কক্সবাজার জেলার করোনা ভাইরাসের টিকাদান কেন্দ্র করা হয়। এরমধ্যে, মানবদেহে করোনার ভ্যাকসিন দেওয়ার জন্য ৮ টি প্রশিক্ষিত টিম জেলা সদর হাসপাতালে, ৪টি টিম কক্সবাজার মেডিকেল কলেজে এবং সিভিল সার্জন অফিসে ২ টি টিম কাজ করেছে।এছাড়া, রামু সেনানিবাসের সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে ৪ টি টিম, জেলার প্রতিটি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ২টি টিম এবং প্রতিটি ইউনিয়নে একটি করে টিম মানবদেহে করোনার ভ্যাকসিন দেওয়ার কাজে নিয়োজিত আছে। এছাড়া, প্রয়োজন সাপেক্ষে ইউনিয়ন পর্যায়েও আরো কিছু টিম করোনার ভ্যাকসিন প্রদানের কাজ করছে।

প্রথম দফে গত ৩১ জানুয়ারী ৮৪ হাজার ডোজ করোনা ভাইরাসের ভ্যাকসিন কক্সবাজারে আনা হয়।কক্সবাজারে সারাদেশর মতো গত ৭ ফেব্রুয়ারী আনুষ্ঠানিকভাবে উদ্বোধন করা হয়, মানবদেহে করোনা ভ্যাকসিন প্রয়োগ কর্মসূচী। উদ্বোধনী দিনে কক্সবাজার জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মোস্তাক আহমেদ চৌধুরী, সংসদ সদস্য কানিজ ফাতেমা আহমেদ, জেলা প্রশাসক মো. মামুনুর রশীদ, সিভিল সার্জন ডা. মাহবুবুর রহমান সহ জেলার প্রায় অর্ধ্বশত ভিভিআইপি ভ্যাকিসন গ্রহণ করে জেলায় এ কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন।

পাঠকের মতামত: