কক্সবাজার, রোববার, ১৭ অক্টোবর ২০২১

পূজায় নিয়ন্ত্রণের আওতায় থাকবে যেসব সড়ক

সনাতনী সম্প্রদায়ের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় অনুষ্ঠান দুর্গাপূজাকালীন চট্টগ্রাম নগরীর দক্ষিণ ট্রাফিক বিভাগের নিয়ন্ত্রণাধীন এলাকায় সড়কে যানবাহন ডাইভারশন করবে পুলিশ। তারা বলছে, এই বিশেষ ব্যবস্থার মাধ্যমে নিশ্চিত হবে দর্শনার্থীদের ও জনসাধারণের সুষ্ঠু ও নির্বিঘ্ন চলাচল। তবে জরুরি প্রয়োজনের ক্ষেত্রে ওই সকল এলাকার সড়কগুলো এড়িয়ে বিকল্প সড়ক ব্যবহারের জন্য পরামর্শ দিয়েছে ট্রাফিক পুলিশ।

সোমবার (১১ অক্টোবর) বিকেলে পাঠানো এক বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানিয়েছে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের দক্ষিণ ট্রাফিক বিভাগ।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, শারদীয় দুর্গাপূজা চলাকালীন আন্দরকিল্লা জেএমসেন হলের মুখে গণি বেকারির গুডস হিলে সকল প্রকার যানবাহন ডাইভারশন করা হবে। এছাড়া নগরীর নেওয়াজ হোটেল মোড় ও সদরঘাট জেটি, সিটি কলেজ মোড়, জিপিও- আলকরন, কোতোয়ালি মোড়, বক্সিরহাট এলাকায় ভারী ও পণ্যবাহী যানসমূহ নিয়ন্ত্রণ করা হবে।

শারদীয় দুর্গোৎসব চলাকালীন সময়ে বক্সিরহাট মোড়ের মিডিয়ান গ্যাপ বন্ধ থাকবে। অন্যদিকে সদরঘাট, ইসলামিয়া কলেজ মোড়, নালাপাড়া, কালীবাড়ী, সিটিকলেজ/জিপিও রোডের ভারী যানবাহন প্রবেশ দুপুর ১২টা থেকে ১২টা পর্যন্ত সম্পূর্ণরূপে বন্ধ থাকবে।

কোতোয়ালি, লালদিঘী, বক্সিরহাট, চাক্তাই/খাতুনগঞ্জে চলাচলকালে ভারী ও পণ্য বহনকারী যানবাহন সমূহে কোতোয়ালি মোড় হতে ডাইভারশন প্রদান করা হবে।

যেসব সড়কে চাপ থাকার সম্ভাবনা বেশি
শারদীয় দুর্গোৎসব চলাকালে পূজামণ্ডপগুলোতে ব্যাপক দর্শনার্থীর ভীড় থাকবে বিধায়
চাপ থাকতে পারে বিভিন্ন সড়কে। স্বাভাবিক সময়ের তুলনায় যানবাহনের চাপ বেশি থাকায় ওই সকল সড়কে ধীর গতিতে চলাচল করবে যানবাহন।

সড়কগুলো হল- ইসলামিয়া কলেজ মোড়, নালাপাড়া, সিটিকলেজ মোড়, কালীবাড়ী মোড়, নিউমার্কেট, জিপিও, কোতোয়ালি, আমতল, তিনপুল, বৌদ্ধমন্দির, পুলিশ প্লাজা, লালদিঘী পাড়, বক্সিরহাট, আন্দরকিল্লা, চেরাগি পাহাড়, সার্সন রোড, কাজীর দেউড়ি, রেডিসন ব্লু, আলমাস, সিরাজদৌল্লা রোড, গুলজার, অলিখাঁ মোড় এলাকা।

জরুরি প্রয়োজনের ক্ষেত্রে এই এলাকায় সড়কগুলো এড়িয়ে বিকল্প সড়ক ব্যবহারের জন্য পরামর্শ দেয়া হয়েছে ট্রাফিক পুলিশের পক্ষ থেকে।

বিষয়টি নিশ্চিত করেন সিএমপির অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (ট্রাফিক) শ্যামল কুমার নাথ। তিনি পূর্বকোণকে বলেন, দুর্গাপূজার সময় মণ্ডপকেন্দ্রিক নানা আয়োজন থাকা ওই সকল সড়কে যানবাহনের চাপ বেড়ে যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। তবে নগরবাসীর নির্বিঘ্নে চলাচল নিশ্চিত করতে ট্রাফিক পুলিশী ব্যবস্থার অংশ হিসেবে অতিরিক্ত সার্জেন্ট, টিএসআই, এএসআই, এটিএসআই, কনস্টেবল মোতায়ন করা হবে। শারদীয় দুর্গোৎসব সুষ্ঠুভাবে পালনের জন্যে নগরবাসীর সহযোগিতা প্রত্যাশা করেন তিনি।

পাঠকের মতামত: