কক্সবাজার, সোমবার, ১৬ মে ২০২২

উখিয়ায় ইউএনও ছাড়া সব অফিসে তালা

সরকারী কর্মকর্তা কর্মচারীদের কর্মস্থলে উপস্থিত থাকার জন্য মন্ত্রিপরিষদ ও জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা থাকলেও উখিয়ায় ইউএনও নিকারুজ্জামান চৌধুরী ছাড়া আর কেউ নেই।

সবাই অফিসে তালা লাগিয়ে চলে গেছেন বাড়িতে। জনগণের এই দুর্যোগময় মুহূর্তে জরুরী কাজে লাগানোর জন্য ইউএনও কাউকে পাচ্ছেন না বলে জানা গেছে। বৃহস্পতিবার দুপুরে ১২ উখিয়া উপজেলা পরিষদে গিয়ে দেখা গেছে, উপজেলায় সুনশান নিরবতা। প্রতিটি সরকারী অফিসের সামনে ঝুলছে তালা। উখিয়ার ইউএনও নিকারুজ্জামান ছাড়া কেউ নেই। অথচ জনগণের এই সঙ্কটের সময় মুহূর্তে সবাইকে উপজেলা প্রশাসনকে সহায়তার জন্য নির্দশনা ছিল।

কিন্তু উখিয়া উপজেলার কেউ সেই নির্দেশ মানছে না। জরুরী প্রয়োজনে সরকারী কর্মকর্তারা উখিয়ার জনগণের পাশে থাকার পরিবর্তে নিজের ঘরকেই বেছে নিয়েছেন।

উখিয়া থেকে সংবাদদাতা জানান, ইউএনও নিকারুজ্জামান বৃহস্পতিবার সকালে রোহিঙ্গা অধ্যুষিত কুতুপালং এলাকায় স্থানীয় লোকজনকে সাবান সরবরাহ শেষে হাত ধুয়ার ও পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন থাকার পরামর্শ দিয়ে বলেন, সরকার জনগণের স্বার্থে সব ব্যবস্থা করে যাচ্ছে।

যে কয়টা দিন নিতান্ত গরিবরা ঘরে নিরাপদে থাকবেন, তাদের জন্য চাল ও নগদ টাকা বরাদ্দ দিয়েছে।জনকণ্ঠ

পাঠকের মতামত: